SHARE

মিসবাহ্ উদ্দিন সৌরভ,পাকুন্দিয়া (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি: কটিয়াদী উপজেলায় একজন দানবীর, সমাজসেবক হিসেবে পরিচিতি হয়ে উঠেছেন বিশিষ্ট শিল্পপতি আওয়ামীলীগ নেতা ‘রাজন আহমেদ মল্লিক (সুমন)’।

তার জন্মস্থান: কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী উপজেলার বনগ্রাম ইউনিয়নের জামষাইট গ্রামে। তার বাবা আব্দুর রশিদ মল্লিক। তিনি বর্তমানে আমেরিকা প্রবাসী এবং একজন ইঞ্জিনিয়ার। মল্লিক সুমন পাকুন্দিয়া ও কটিয়াদী উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের অসহায়-দরিদ্র মানুষের পাশে এসে দাঁড়ান। শুধু তাই নয়, তিনি এই দুই উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের দিকেও খেয়াল রাখেন। উল্লেখ্য, তিনি ঐতিহাসিক মাইজহাটি মদিনাতুল উলুম মাদ্রাসা ও চুপিনগর দারুল আরকাম মাদ্রাসায় উন্নয়নমূলক কাজের জন্য তিনি ইতিমধ্যে ১ লক্ষ টাকা করে  এবং  শিমুহা জামে মসজিদের জন্য এক লক্ষ দশ হাজার টাকা  করে অনুদান প্রদান করেন। তাছাড়াও পাইকশা উচ্চ বিদ্যালয়ের একটি  ছয় রুমের বিল্ডিং নির্মানের পুরো  খরচ বহন করেন, কায়েস্থপল্লী উচ্চ বিদ্যালয়ে ৯৭ হাজার টাকা এবং কায়েস্তপল্লি জামে মসজিদ উন্নয়নের জন্য ২ লক্ষ টাকা এবং  কোদালিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে দেড় লক্ষ টাকার অনুদান  প্রদান করেন।

তিনি বর্তমান করোনা (কভিড-১৯) পরিস্থিতিতে মধ্যবিত্তদের মাঝে তার কর্মীদের মাধ্যমে গোপনে কিশোরগঞ্জ জেলা এবং ঢাকায়  প্রায় দুই হাজার পরিবারে আর্থিক  সহায়তার হাত বাড়িয়ে দেন। যারা কিনা এই পরিস্থিতিতে কারও কাছে কোন কিছু চাইতেও লজ্জাবোধ করে। এছাড়াও তিনি বিভিন্ন জায়গায় সাবান, হ্যান্ডওয়াস, ও জীবাণুনাশক স্প্রে’র ব্যবস্থা করেন।

বিভিন্ন  মাদ্রাসা, মসজিদ, মন্দির এবং  কবরস্থান এর মেরামত ও উন্নয়নের জন্য যথাক্রমে তিনি ১০ কোটি টাকারও বেশি  অনুদান প্রদান করেছেন। তিনি সব মিলিয়ে ৬৪৩ টি প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নের জন্য অনুদান প্রদান করে করেন।

তিনি এলাকার বিভিন্ন গরীব-অসহায়দের মাঝে নগদ অর্থ প্রদানসহ তাদের মাঝে ছাগল বিতরণ, শীতবস্ত্র প্রদানসহ বিভিন্ন আর্থিক সহায়তা দিয়ে আসছেন। তার সাথে কথা বললে তিনি জানান, মানবসেবা করাটাই আমার মূল উদ্দেশ্য। এই মুজিববর্ষ উপলক্ষে আমি বড় ধরনের বাজেটের কাজ করব ইনশা-আল্লাহ । এর মধ্যে ২০০ অসহায় দরিদ্র কৃষককে ১লক্ষ টাকার ইজারা জমি দুই বছর মেয়াদে ভোগদখলের ব্যবস্থা করে দিবো। ১ লক্ষ ৬০ হাজার টাকা ব্যায়ে  কটিয়াদী উপজেলায় অসহায়,  গরীব মানুষদের মাঝে ৩০০ ঘর তৈরি করে দিবো। এবং ৩০০ গাভী অসহায়  মানুষের মাঝে বিতরণ করবো। যেন তারা সবাই কিছু করে তাদের জীবীকা নির্বাহ করতে পারে। এবং উপজেলা ভিত্তিক তিন হাজার নারীকে দর্জ্বি প্রশিক্ষণ দিয়ে পুরো উপজেলায় তিন হাজার  সেলাই মেশিন প্রদান করা হবে। যেন নারীরাও পিছিয়ে না থাকে।

রাজন আহমেদ মল্লিক (সুমন) তিনি একজন সৎ রাজনীতিবিদ।  বর্তমান কটিয়াদী উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি পদ প্রার্থী। তিনি একজন বিশিষ্ট শিল্পপতি। উনার একাধিক গার্মেন্টস  প্রতিষ্ঠান রয়েছে। তিনি আরো জানান, আমি নিজেকে মানবসেবায় নিবেদিত করে দিতে চায়। সারাজীবন এভাবেই মানুষের পাশে থেকে কাজ করে যেতে চায়। যেন কোথাও কোন দারিদ্রতার ছাঁপ না থাকে। সবাই যেন ভালোভাবে জীবন-যাপন করতে পারেন। আমি কিশোরগঞ্জ-২ আসনের (পাকুন্দিয়া-কটিয়াদী) মাননীয় সাংসদ, আমার প্রিয় অভিভাবক  জনাব নুর মোহাম্মদের নির্দেশক্রমে এলাকায় মানবসেবামূলক কার্যক্রম চালিয়ে যেতে চায়, যেন কিছুটা হলেও সবার দুঃখ- কষ্ট গুছিয়ে দিতে পারি। এজন্য তিনি কটিয়াদি এবং পাকুন্দিয়া উপজেলার  সর্বস্তরের জনগণের দোয়া প্রার্থী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here