1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : গোলাম সরোয়ার মেহেদী : গোলাম সরোয়ার মেহেদী বরিশাল ব্যুরো প্রধান
  3. [email protected] : সাইদ হাসান কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি : সাইদ হাসান কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি
  4. [email protected] : মোঃ এরফান হোসেন কক্সবাজার প্রতিনিধি : মোঃ এরফান হোছাইন কক্সবাজার প্রতিনিধি
  5. [email protected] : সাখাওয়াত হোসেন সাকা চট্রগ্রাম ব্যুরো প্রধান : সাখাওয়াত হোসেন সাকা চট্রগ্রাম ব্যুরো প্রধান
  6. [email protected] : রাকিব হাসান হাকন্দ ঢাকা ব্যুরো প্রধান : রাকিব হাসান হাকন্দ ঢাকা ব্যুরো প্রধান
  7. [email protected] : স্টাফ রিপোর্টারঃ : স্টাফ রিপোর্টারঃ
  8. [email protected] : Shahriar Ahmed : Shahriar Ahmed
  9. [email protected] : জুবায়ের চৌধুরী কাজল ফরিদপুর ব্যুরো প্রধান : জুবায়ের চৌধুরী কাজল ফরিদপুর ব্যুরো প্রধান
  10. [email protected] : সম্রাট শাহ খুলনা ব্যুরো প্রধান : সম্রাট শাহ খুলনা ব্যুরো প্রধান
  11. [email protected] : শাহ্ জামাল ময়মনসিংহ ব্যুরো প্রধান : শাহ্ জামাল ময়মনসিংহ ব্যুরো প্রধান
  12. [email protected] : দেলোয়ার ইবনে হোসেন নোয়াখালী প্রতিনিধি : দেলোয়ার ইবনে হোসেন নোয়াখালী প্রতিনিধি
  13. [email protected] : আমজাদ হোসেন রাজশাহী ব্যুরো প্রধান : আমজাদ হোসেন রাজশাহী ব্যুরো প্রধান
  14. [email protected] : এম এ সালাম রুবেল রংপুর ব্যুরো প্রধান : এম এ সালাম রুবেল রংপুর ব্যুরো প্রধান
  15. [email protected] : রুবেল আহমেদ : রুবেল আহমেদ
  16. [email protected] : S K Ali Badhan : S K Ali Badhan
মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৪:৫৩ অপরাহ্ন

গিনেস রেকর্ডে এবার ‘চারুর’ নাম

রেদোয়ান হাসান সাভার,ঢাকা প্রতিনিধি দৈনিক শিরোমণিঃ
  • আপডেট : বুধবার, ২৬ জানুয়ারী, ২০২২
রেদোয়ান হাসান সাভার,ঢাকা প্রতিনিধি দৈনিক শিরোমণিঃ বিশ্বের সবচেয়ে খর্বাকৃতির গরু হিসেবে গিনেস বুকে জায়গা করে নিয়েছে চারু নামের আরেকটি গরু। রানির মতো শেকড় এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড নামের একটি খামারেই বেড়ে উঠেছে চারুও।বুধবার (২৬ জানুয়ারি) সাভারে আশুলিয়ার চারিগ্রাম এলাকায় শেকড় এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী সুফিয়ান এই তথ্য নিশ্চিত করেন।এর আগে মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) গিনেস কর্তৃপক্ষ চারুকে বিশ্বের সবচেয়ে খর্বাকৃতির জীবিত গরুর স্বীকৃতি দিয়ে ই-মেইল পাঠায়। ২০২১ সালের ২৯ সেপ্টেম্বর চারুকে খর্বাকৃতির গরুর স্বীকৃতি দিতে খামরটির পক্ষ থেকে গিনেজ কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন জানানো হয়।খামার কতৃপক্ষ জানিয়েছে, চারু নামের গরুটির জন্ম ২০১৯ সালের জুলাই মাসে। গরুটির বয়স এখন আড়াই বছর। উচ্চতা ২৩ দশমিক ৫০ ইঞ্চি, লম্বায় ২৭ ইঞ্চি ও ওজন ৩৯ কেজি। ২০২১ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর গিনেস বুকে মৃত গরু হিসেবে রেকর্ড গড়া রাণীর উচ্চতা ছিলো ২০ ইঞ্চি, লম্বা ২৪ ইঞ্চি ও ওজন ২৬ কেজি। চারুকে দেখাশুনার দায়িত্বে থাকা খামারের কর্মচারী মো. মামুন বলেন, ‘আমাদের শিকড় এগ্রো ইন্ড্রাস্ট্রিজ খামারে অনেক রকমের পশু-পাখি লালনপালন করা হয়। রাণী মারা যাওয়ার পর প্রায় ছয় মাস আগে চারুকে আমরা সিলেট থেকে সংগ্রহ করি। যেভাবে রাণীকে সংগ্রহ করা হয়েছে সেভাবেই চারুকে আনা হয়েছে। এরপর থেকে এই খামারে চারুকে প্রাকৃতিক খোলামেলা পরিবেশে পালন করছি। আগে যেহেতু রাণী মারা গেছে তাই চারুর প্রতি একটু বেশি যত্ন নেওয়া হয়। স্যাররা এখানে আসার পর ওর নাম চারু দিয়েছে। গিনেস কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা অনুযায়ী আমরা একাধিকবার চারুর শরীরের গঠনের (মাপ) ছবি এবং ভিডিও তাদেরকে পাঠিয়েছি।’তিনি আরো বলেন, ‘শেকড় এগ্রোর পশু চিকিসক দুই সপ্তাহ পরপর চারুকে দেখতে আসেন। তিনি চারুর ওজন, শরীর চকচকে আছে কি না, গঠন বাড়ছে কি না এসব দেখেন।’খামারের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও কাজী সুফিয়ান বলেন, ‘অল্প ক’দিনেই মারা যাওয়া রাণী’র উল্লেখযোগ্য  সংখ্যক ভক্ত তৈরী হয়েছিল। আর তাই বেশিরভাগ মানুষই রাণীর মৃত্যু মেনে নিতে পারেনি। আমরা অনেক টাকায় বিক্রির অফার পেয়েও কেন বিক্রি করিনি সেটা নিয়ে অনেকে বিদ্রুপ করেছেন। কেউ কেউ আমাদের গাফেলতির কথা বলেছেন। ওই সময়টাতে ভীষণ খারাপ লাগতো। আসলে রাণী’র প্রতি সবার ভালবাসাটা আমরা বুঝতাম।’তিনি আরও বলেন, ‘রাণী’র মৃত্যুর পর গিনেজ বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস কতৃপক্ষ শোক প্রকাশ করে আমাদের ইমেইল পাঠান। তারা জানান, রাণীর সম্মানার্থে পৃথিবীর সবচেয়ে জীবিত ছোট গরু হিসেবে আরো একটা ক্যাটাগরি তারা চালু করবেন। আমাদের কাছে কম্পিটেশন করার মত কিছু থাকলে এতে অংশগ্রহণ করতে পারি।’কাজী সুফিয়ান বলেন, ‘নির্ভরশীল কর্মীবাহিনীর সাহায্যে আমাদের সংগ্রহশালায় নতুন চমক যোগ হয় ৪ দাঁতের প্রাপ্তবয়স্ক দেশীয় প্রজাতির বামন গরু চারু। যার উচ্চতা ২৩ দশমিক ৫০ ইঞ্চি। চারু লম্বায় ২৭ ইঞ্চি ও এর ওজন ৩৯ কেজি। যাকে বর্তমানে পৃথিবীর সবচেয়ে জীবিত খর্বাকৃতির গরু হিসেবে গিনেজ বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস কতৃপক্ষ স্বীকৃতি দিয়েছে। মঙ্গলবার গিনেস কর্তৃপক্ষ ই-মেইলের মাধ্যমে বিষয়টি আমাদের নিশ্চিত করেছেন।’চারুকে নিয়ে পরিকল্পনার বিষয়ে সুফিয়ান বলেন, ‘আমাদের ইচ্ছে ছিল বিশ্বরেকর্ডধারী রানীকে বাংলাদেশ সরকারকে উপহার হিসেবে দেওয়া। যেন সরকারের তত্ত্বাবধানে রাণী তার জীবনের সর্বোচ্চ সময়টা উপভোগ করতে পারে। কিন্তু রাণী অকালে চলে যাওয়ায় সে সুযোগটা আর আমরা পাইনি। এখন চারু যাতে তার জীবনের সর্বোচ্চ সময়টা উপভোগ করতে পারে এটা আমাদের ইচ্ছা।
Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email
5 views

Please Share This Post in Your Social Media

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© ২০২২ দৈনিক শিরোমনি