1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : বরিশাল ব্যুরো প্রধান : বরিশাল ব্যুরো প্রধান
  3. [email protected] : cmlbru :
  4. [email protected] : চট্রগ্রাম ব্যুরো প্রধান : চট্রগ্রাম ব্যুরো প্রধান
  5. [email protected] : ঢাকা ব্যুরো প্রধান : ঢাকা ব্যুরো প্রধান
  6. [email protected] : স্টাফ রিপোর্টারঃ : স্টাফ রিপোর্টারঃ
  7. [email protected] : ফরিদপুর ব্যুরো প্রধান : ফরিদপুর ব্যুরো প্রধান
  8. [email protected] : সম্রাট শাহ খুলনা ব্যুরো প্রধান : সম্রাট শাহ খুলনা ব্যুরো প্রধান
  9. [email protected] : ময়মনসিংহ ব্যুরো প্রধান : ময়মনসিংহ ব্যুরো প্রধান
  10. [email protected] : আমজাদ হোসেন রাজশাহী ব্যুরো প্রধান : রাজশাহী ব্যুরো প্রধান
  11. [email protected] : রংপুর ব্যুরো প্রধান : রংপুর ব্যুরো প্রধান
  12. [email protected] : রুবেল আহমেদ : রুবেল আহমেদ
রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৯:৪০ অপরাহ্ন

বশেমুরবিপ্রবিতে অপেক্ষমান শিক্ষার্থীদের আমরণ অনেশন

ফয়সাল জামান ফাহিম, বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধি। ইডেটর- জুবায়ের চৌধুরী কাজল
  • আপডেট : মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর, ২০২০

ফয়সাল জামান ফাহিম, বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধিঃ

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষায় প্রশাসন কর্তৃক প্রকাশিত সর্বশেষ অপেক্ষমান তালিকা থেকে শিক্ষার্থী সংগ্রহ বন্ধ এবং বিশ্ববিদ্যালয়টির সিট সংখ্যা অপূর্ণ রেখেই ক্লাস করেছেন শিক্ষার্থীরা।

গত ১৪ সেপ্টেম্বর অনিশ্চয়তায় ভুগছেন এমন কিছু সংখ্যক শিক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয় মাননীয় উপাচার্য বরাবর চিঠি প্রদান করেন। তারা দাবি করেন সাবেক ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য এবং প্রশাসন সিট সংখ্যা অপূর্ণ রেখে অপেক্ষামান শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যৎ অনিশ্চয়তায় ফেলে দিয়েছেন। বিভিন্ন শিক্ষক এবং প্রশাসনের ব্যক্তিবর্গ এ ব্যাপারে পদক্ষেপ নিবেন বলে আশ্বাস দিলেও বিগত ৯ মাসে পদক্ষেপ নেয়নি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন।

এরই ধারাবাহিকতায় আজ ২৭ অক্টোবর অপেক্ষামান থাকা শিক্ষার্থীরা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসের প্রধান ফটকের সামনে আমরণ অনেশন করছে।

অনশনরত শিক্ষার্থীদের মধ্যে মোহাম্মদ মিলন আলি নামক একজন শিক্ষার্থী বলেন- বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখিত পরীক্ষা এবং ফলাফল ঘোষণার নির্ধারিত সময়সূচী পরিবর্তন সহ পরীক্ষার সেন্টার পরিবর্তনে অসংখ্য শিক্ষার্থীকে ভোগান্তিতে পড়তে হয়েছিল এবং পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণায় বিলম্ব করে পূর্ববর্তী প্রশাসন। এছাড়াও প্রশ্ন ফাঁস ঠেকাতে ব্যর্থ হয়েছে প্রশাসন।

আমাদের জানা মতে আসন সংখ্যা অপূর্ণ রাখা হয়েছে। যত দ্রুত সম্ভব আমাদের ভর্তি নিশ্চিত করে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পূণ্যভূমি গোপালগঞ্জে তারই নামাঙ্কিত বিশ্ববিদ্যালয়ে আমাদের শিক্ষা গ্রহণের সুযোগ করে দিতে হবে।

এ বিষয়ে বশেমুরবিপ্রবির নবনিযুক্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ কিউ এম মাহবুব বলেন- বন্ধ ক্যাম্পাসে সিদ্ধান্ত দেওয়া সম্ভব নয়।তবে ক্যাম্পাস খুললে শীঘ্রই একটি সিদ্ধান্তে পৌঁছানো যাবে।

উল্লেখ্য, বশেমুরবিপ্রবিতে সর্বমোট ৩৩০ টিরও বেশি সংখ্যা ফাঁকা রয়েছে।

Facebook Comments
৬৯ views

Please Share This Post in Your Social Media

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© ২০২২ দৈনিক শিরোমনি