1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : বরিশাল ব্যুরো প্রধান : বরিশাল ব্যুরো প্রধান
  3. [email protected] : cmlbru :
  4. [email protected] : চট্রগ্রাম ব্যুরো প্রধান : চট্রগ্রাম ব্যুরো প্রধান
  5. [email protected] : ঢাকা ব্যুরো প্রধান : ঢাকা ব্যুরো প্রধান
  6. [email protected] : স্টাফ রিপোর্টারঃ : স্টাফ রিপোর্টারঃ
  7. [email protected] : ফরিদপুর ব্যুরো প্রধান : ফরিদপুর ব্যুরো প্রধান
  8. [email protected] : সম্রাট শাহ খুলনা ব্যুরো প্রধান : সম্রাট শাহ খুলনা ব্যুরো প্রধান
  9. [email protected] : ময়মনসিংহ ব্যুরো প্রধান : ময়মনসিংহ ব্যুরো প্রধান
  10. [email protected] : আমজাদ হোসেন রাজশাহী ব্যুরো প্রধান : রাজশাহী ব্যুরো প্রধান
  11. [email protected] : রংপুর ব্যুরো প্রধান : রংপুর ব্যুরো প্রধান
  12. [email protected] : রুবেল আহমেদ : রুবেল আহমেদ
সোমবার, ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১২:১১ অপরাহ্ন

চাঁদপুর পদ্মা হাসপাতালে নবজাতকের মৃত্যুর অভিযোগ

সোহাঈদ খান জিয়া , চাঁদপুর জেলা প্রতিনিধি
  • আপডেট : বুধবার, ১১ নভেম্বর, ২০২০

চাঁদপুর শহরের পদ্মা প্রাইভেট হাসপাতালে নার্সদের অবহেলায় নবজাতকের মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। এতে হাসপাতালের ব্যবস্থাপনাকে দায়ী করছেন ভুক্তভোগী পরিবার।

নবজাতককে অনবিজ্ঞ নার্স দিয়ে একাধিক সুঁইয়ের আঘাতে এমন মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে বলে জানা যায় ।
বুধবার (১১ নভেম্বর) সকাল ১০ টায় চাঁদপুর শহরের পৌর সুপার মার্কেটে ওই হাসপাতালের তৃতীয় তলায় এ মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। সংবাদ পেয়ে চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নাসিম উদ্দিনসহ পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং ঘটনার বিষয়ে খোঁজ খবর নেন।
নিহত নবজাতককের পিতা মিলন গাজী ও তার পরিবারের অন্যান্যরা জানান, ৯ নভেম্বর তার স্ত্রী রূপালী বেগমকে পদ্মা হাসপাতালে ভর্তি করেন। ওইদিন সকাল সাড়ে ৮ টায় ডাঃ নুসরাত জাহান মিতার সিজারিয়ানের মাধ্যমে তাদের একটি পুত্র সন্তান জন্ম নেয়। শিশুটি জন্ম হওয়ার পর থেকে ঠান্ডা জনিত সমস্যা দেখে তারা প্রাইভেট ডাক্তার দেখানোর জন্য বেশ কয়েকবার হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে বলেন। কিন্তু হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাদের খামখেয়ালী মতো ওই হাসপাতালে রেখেই চিকিৎসা দিবেন বলে তাদেরকে অন্য খানে শিশুটিকে ডাক্তার দেখানোর অনুমতি দেননি।
পরে শিশুটির ঠান্ডা জনিত সমস্যার কারনে ভুক্তভোগী পরিবার শিশু বিশেষজ্ঞ ডাক্তার আসমা আক্তারকে দেখাতে নিয়ে যান। ডাঃ আসমা শিশুটির বিবরণ শোনে উন্নত চিকিৎসার জন্য দ্রুত ঢাকায় নেয়ার পরামর্শ দেন।
মিলন গাজী ও তার পরিবারের অভিযোগ, যখন শিশুটিকে ঢাকায় নিতে গাড়ীর জন্য বাহিরে গিয়েছেন। এর ফাঁকে হাসপাতালের দু জন নার্স বিউটি গাইন ও রেখা শিশুটিকে ক্যানোলা পড়াতে গিয়ে তার শরীরে একাধিক সুঁইয়ের আঘাত করেন এবং তার কিছুক্ষনের মধ্যেই শিশুটির মৃত্যু হয়।
হাসপাতালে কর্মরত নার্স বিউটি গাইন জানান, শিশুটিকে ক্যানোলা পড়ানোর জন্য সুঁই দেয়া হয়।
এদিকে হাসপাতালের পরিচালক মোঃ সফিউল্ল্যাহ জানান, এখানে আমাদের কোন ভুল টিকিৎসা হয়নি। বরং শিশুটি ঠান্ডা ও শ্বাসকষ্ট জনিত কারণে মৃত্যু হয়েছে।

Facebook Comments
১ view

Please Share This Post in Your Social Media

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© ২০২২ দৈনিক শিরোমনি