ফ্রান্স ও ক্রোয়েশিয়ার প্রেসিডেন্টের উষ্ণতা বিনিময়

অনলাইন ডেস্ক :    এবার বিশ্বকাপে রাজনৈতিক নেতাদের মধ্যে সম্ভবত সবচেয়ে আলোচিত এবং গ্লামার ছড়িয়েছেন ক্রোয়েশিয়ার প্রেসিডেন্ট কোলিন্দা গ্রাবার-কিতারোভিচ। ফাইনালেও তিনি, ফ্রান্সের ফার্স্টলেডি ব্রিজিত ম্যাক্রন ও প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল আলো ছড়ালেন। ইমানুয়েল ম্যাক্রনের ফ্রান্সের কাছে কোলিন্দা গ্রাবার-কিতারোভিচের ক্রোয়েশিয়া হেরে গেছে। তাতে অতোটা অনুতপ্ত হতে দেখা যায় নি শেষ বাঁশি বাজার পরেও তাকে। যখন রেফারি শেষ বাঁশি বাজালেন তখন ইমানুয়েল ম্যাক্রন তার স্ত্রী ব্রিজিতের কাঁদে হাত রেখে নাচছিলেন। কিন্তু ইমানুয়েল ম্যাক্রনের বাম পাশ থেকে এগিয়ে আসেন ক্রোয়েশিয়ার প্রেসিডেন্ট কোলিন্দা।

তিনি ইমানুয়েল ম্যাক্রনকে আলিঙ্গন করেন। দু’নেতা ফ্রেঞ্চ কিস বিনিময় করেন। তখনও ফরাসি ফ্রাস্ট লেডি ব্রিজিত ম্যাক্রন নেচে যাচ্ছের পাশের একজন নারীর সঙ্গে। ক্যামেরা কিন্তু অফ হয়ে থাকে নি। সঙ্গে সঙ্গে চলে গিয়েছে সেখানে। লাইভ সম্প্রচারে দেখানো হয়, ব্রিজিত নাচছেন। এরপরই দেখানো হয় ইমানুয়েল ম্যাক্রন ও কোলিন্দা ফ্রেঞ্চ কিস বিনিময় করছেন। এমনিতেই ক্রোয়েশিয়ার এই নারী প্রেসিডেন্ট নানা কারণে আলোচিত। এর আগে সেমিফাইনাইলে তারা বিজয়ী হওয়ার পর প্রেসিডেন্ট সরাসরি চলে যান খেলোয়াড়দের ড্রেসিংরুমে। মিডিয়ার রিপোর্টে বলা হয়েছে, এ সময় অনেক খেলোয়াড় ছিলেন নগ্ন। সেখানে গিয়ে তিনি তাদেরকে আলিঙ্গন করেছেন। পরে অবশ্য প্রেসিডেন্ট খেলোয়াড়দের একটি জার্সি নিয়ে তা প্রদর্শন করেছেন। আর রোববার রাতে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে তো প্রতিটি খেলোয়াড়, রেফারিকে তিনি আলিঙ্গন করেছেন। হয়তো হৃদয় দিয়ে সবাইকে ভালবাসেন তাই। তার এই আলিঙ্গনের মধ্যে হয়তো কোনো অপরাধ বোধ নেই। কিন্তু নিন্দুকেরা এটাকে দেখছেন বাঁকা চোখে।

Photo Gallery

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ সাহিদুর রহমান,অফিসঃ ২২/১, তোপখানা রোড (৫ম তলা) বাংলাদেশ সচিবালয়ের উত্তর পার্শ্বে, ঢাকা-১০০০।
অফিস সেল ফোনঃ ০১৬১১-৯২০ ৮৫০, ই-মেইলঃ shiromoni67@gmail.com ,ওয়েবঃ www. Shiromoni.com

Social Widgets powered by AB-WebLog.com.